ITC-র আশীর্বাদ ‘নেচার্‌স সুপার ফুডস’ নিয়ে এল বাজরার আটা

আনন্দ সংবাদ: খাদ্যশস্যের ক্ষেত্রে ভারতের বাজারে অন্যতম সেরা ব্র্যান্ড আশীর্বাদ, তাদের নেচার্‌স সুপার ফুডস-এর সম্ভারে তিনটি নতুন খাদ্যদ্রব্য- গ্লুটেনমুক্ত আটা, রাগির আটা এবং বিভিন্ন ধরনের বাজরার মিশ্রণে তৈরি আটা নিয়ে আসার কথা জানাল। ব্র্যান্ডের স্লোগান- ‘নার্চারিং থ্রু নেচার’-এর সঙ্গে সঙ্গতি রেখেই এই ঘোষণা‌। সুপার ফুডস হল পুষ্টিগত ভাবে সমৃদ্ধ, যা আপনার স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ভাল। গ্রাহকরা খাবার নিয়ে স্বাস্থ্য সচেতন হওয়ার সঙ্গে-সঙ্গেই খাদ্যশস্যের বাজারে সুপার ফুডস-এর বৃদ্ধি হয়ে উঠেছে দ্রুততম। তালিকার এই নতুন খাদ্যদ্রব্যগুলি কলকাতা, নয়াদিল্লি, মুম্বই, বেঙ্গালুরু, হায়দরাবাদ এবং চেন্নাই সহ ভারতের প্রায় সমস্ত বড় শহরে পাওয়া যাবে।
শহুরের জীবনযাত্রায় ক্রমাগত পরিবর্তন আসার জন্য সহজ এবং প্রথাগত খাবারের প্রতি মানুষের উৎসাহ আবার বাড়ছে। গ্রাহকদের খাদ্যতালিকার বৈচিত্র এবং রকমারি স্বাদের বিষয়টি মাথায় রেখে বিভিন্ন ধরনের খাদ্যদ্রব্য বানিয়ে থাকে নেচার্‌স সুপার ফুড, যা খুব সহজেই দৈনন্দিন খাদ্যাভ্যাসে ঢুকিয়ে ফেলা সম্ভব। এর মধ্যে আছে প্রকৃতির সমস্ত ভাল গুণ – প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন, ফাইবার, প্রোটিন এবং মিনারেল্‌স, যা আপনাকে দেবে প্রচুর পরিমাণে পুষ্টি। নতুন খাদ্যদ্রব্যগুলিতেও থাকছে উদ্ভাবনী গুণ সম্পন্ন গ্লুটেনমুক্ত আটা, রাগির আটা এবং বিভিন্ন ধরনের বাজরার মিশ্রণে তৈরি আটা, যার প্রতিটিই গ্লুটেনমুক্ত, ডায়েটারি ফাইবারে সমৃদ্ধ এবং প্রোটিনের উৎস।
এই সব বিশেষ আটা রোজকার চলতি আটাতে মিশিয়েও তৈরি করা যাবে আরও সুস্বাদু রুটি, দোসা এবং আরও অনেক কিছু।
এই ঘোষণার সময় বক্তব্য রাখতে গিয়ে আইটিসি লিমিটেডের, ডিভিশনাল চিফ এগজিকিউটিভ (ফুডস) হেমন্ত মালিক জানিয়েছেন, “আশীর্বাদের নেচার্‌স সুপার ফুডস এমন একটা সময়ে নিয়ে আসা হল যখন ক্রেতারা আরও বেশি করে স্বাস্থ্যগুনসম্পন্ন খাবারের দিকে ঝুঁকছেন, যাতে আছে যথাযথ পুষ্টি যা মানবদেহের পরিপূর্ণ বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। গ্রাহকদের খাদ্যতালিকায় যে ফাঁকগুলি ছিল, তা পূরণ করতে সফল হবে আইটিসি-র এই নতুন রেঞ্জ। আমরা আত্মবিশ্বাসী যে এই নতুন খাবারগুলি গ্রাহকদের পুষ্টিগুনের চাহিদা এবং পছন্দমতো স্বাদের জোগান দিতে পারবে।”
এই খাদ্যদ্রব্যগুলি পাওয়া যাবে সমস্ত সাধারণ এবং আধুনিক দোকান সহ প্রথম সারির ই-কমার্স প্ল্যাটফর্মেও।

১ কেজি গ্লুটেনমুক্ত আটার প্যাকেটের মূল্য ১৯০ টাকা, ৫০০ গ্রামের প্যাকেট মিলবে ১০০ টাকায়।
১ কেজি রাগির আটা প্যাকেটের মূল্য ৭৫ টাকা, ৫০০ গ্রামের প্যাকেট মিলবে ৪০ টাকায়।
১ কেজি মাল্টি মিলেট মিক্স-এর মূল্য ১৪০ টাকা, ৫০০ গ্রামের প্যাকেট মিলবে ৭৫ টাকায়।
ITC Foods সম্পর্কে কিছু তথ্য:
ITC-র ব্র্যান্ডেড প্যাকেজড ফুড বিজনেস দেশের অন্যতম দ্রুত বেড়ে চলা খাবারের ব্যবসাগুলির মধ্যে অন্যতম, ভারতের তৃতীয় বৃহত্তম ফুড কোম্পানি এটি, মার্কেটের পরিস্থিতি এবং গ্রাহকদের পছন্দের বিচারে প্রথম সারিতে রয়েছে এই সংস্থার উৎপাদিত পণ্যগুলি, যারমধ্যে জনপ্রিয় ব্র্যান্ডগুলি হল – আশির্বাদ, সানফিস্ট, বিঙ্গো!, ইপ্পি!, কিচেন অফ ইন্ডিয়া, বি ন্যাচেরাল, মিন্ট-ও, ক্যান্ডিম্যান এবং গামঅন। ফুড বিজনেসটি বর্তমানে বাজারের দিকে লক্ষ্য রেখে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে ভাগ করা হয়েছে- যেমন – স্ট্যাপলেস, মশলা, রেডি -টু-ইট, স্ন্যাক ফুডস, বেকারি এবং কনফেকশনারি এছাড়া নতুন আসা জুস ও বেভারেজ। ITC-র Foods ব্র্যান্ডগুলি তাদের বৈচিত্র্য নিয়েই লক্ষ লক্ষ পরিবারের মুখে হাসি ফুটিয়েছে, ITC-র নিজস্ব বিশেষজ্ঞ দল সর্বদা পণ্যগুলির মানোন্নয়নের দিকে নজর রেখেছে, পাশাপাশি গ্রাহকদের চাহিদা বোঝা, ভারতীয় পছন্দ সম্পর্কে স্পষ্ট ধারণা, কৃষি পণ্য উৎপাদন এবং প্যাকেটজাত করা ও শক্তিশালী বন্টন নেটওয়ার্ক ITC-কে ভারতের ফুড বাজারে অন্যতম শক্তিশালী সংস্থায় পরিণত করেছে। গ্রাহকদের স্বাস্থ্য এবং নিরাপত্তার দিকে বরাবরই নজর দেয় ITC, এবিষয়ে কোনও রকম আপোষ করে না সংস্থাটি। উৎপাদন এবং বন্টনের সময় খাদ্যের উচ্চমান, নিরাপত্তা এবং স্বাস্থ্যবিধির দিকে কড়া নজর রাখে। ITC মালিকানাধীনে থাকা সমস্ত উৎপাদন ইউনিট হ্যাজার্ড অ্যানালিসিস এবং ক্রিটিক্যাল কন্ট্রোল পয়েন্ট (এইচএসিসিপি) দ্বারা সংশাপত্র প্রাপ্ত। সব উৎপাদন ইউনিটের কর্মক্ষমতা নিয়মিত অনলাইনে নিরীক্ষণ করা হয়। প্রসেস কন্ট্রোলের পাশাপাশি ITC নিজস্ব ফুড প্রডাক্টগুলি উৎপাদনের সময় উপাদানগুলি বাছাইয়ে কড়া নজর দেয় এবং কোয়ালিটি স্ট্যান্ডার্ড কঠোরভাবে মেনে চলে। উৎপাদন, বন্টন এবং বিপণনের প্রতিটি ক্ষেত্রেই লাগাতার বিনিয়োগ করে চলেছে সংস্থাটি, লক্ষ্য একটাই দেশের সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য ব্র্যান্ডেড প্যাকেজ ফুড নির্মাতা হিসাবে আত্মপ্রকাশ করা, একাজে কোনওরকম সুযোগ হাতছাড়া করতে রাজি নয় সংস্থাটি। দেশের গণ্ডি পেরিয়ে বিদেশেও ছড়িয়ে পড়েছে ITC-র Foods-এর ব্যাবসা। উত্তর আমেরিকা, আফ্রিকা, মধ্যপ্রাচ্য এবং অস্ট্রেলিয়াতে পণ্য রপ্তানি করে থাকে সংস্থাটি।

Please follow and like us:
0

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *